সর্বশেষ:
ঢাকা, আগস্ট ১৫, ২০২২, ৩১ শ্রাবণ ১৪২৯

cosmicculture.science: বিজ্ঞানকে জানতে ও জানাতে
শনিবার ● ১ ডিসেম্বর ২০১২
প্রথম পাতা » মহাকাশ ও মহাবিশ্ব » মহাবিশ্ব - হুমায়ুন আজাদ
প্রথম পাতা » মহাকাশ ও মহাবিশ্ব » মহাবিশ্ব - হুমায়ুন আজাদ
২৯০ বার পঠিত
শনিবার ● ১ ডিসেম্বর ২০১২
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

মহাবিশ্ব - হুমায়ুন আজাদ

মহাবিশ্ব   - হুমায়ুন আজাদ

আগামী প্রকাশনী থেকে প্রকাশিত
মূল্য: ১৮০ টাকা
প্রথম প্রকাশ: ফেব্রুয়ারি ২০০০
প্রচ্ছদ: সমর মজুমদার
ISBN 978-984-04-1993-7

দশ থেকে বিশ বিলিয়ন বছর আগে বিগ ব্যাং এর মধ্যে দিয়ে সৃষ্টি হয়েছিল মহাবিশ্ব। তারপর অনেক বিলিয়ন বছর কেটে যায়, সাড়ে চার বিলিয়ন বছর আগে সৃষ্টি হয় সৌরজগত এবং আমাদের গ্রহ পৃথিবী, আমাদের চাঁদ, এবং আরো গ্রহ, আরো চাঁদ। অনন্ত কোন এক ঘন এক বিন্দুর বিস্ফোরণে সৃষ্টি হয়েছিল সব কিছু, আজো সৃষ্টি হয়ে চলছে। মহাবিশ্ব এক অনন- অসীম চিরসমপ্রসারণশীল এলাকা, আজো বেড়ে চলছে মহাবিশ্ব। জ্যোতির্বিজ্ঞান অসামান্য আবিষ্কার করে চলছে শতকে শতকে; আমাদের জানিয়ে দিচ্ছে আমরা কোন স্থির বদ্ধ অচল পৃথিবীর মানুষ নই, আমরাও মহাশূন্যে অভিযাত্রী; পৃথিবী নামক অসাধারণ মহাশূন্যযানটি আমাদের নিয়ে ছুটে চলছে নিরন্তর। এক সময় সবাই ভাবতো তারা আছে পৃথিবীর কেন্দ্রে, আর পৃথিবীকে ঘিরে ঘুরছে সূর্য, চাঁদ, তারারা। প্রাচীন জ্ঞানীরাও বলেছেন পৃথিবী স্থির। সাড়ে পাঁচশো বছর আগে কোপার্নিকাস বদলে দেন সৌরজগতকে; পৃথিবীর বদলে সূর্যকে বসান কেন্দ্রে এবং আবিষকৃত হয় সৌরজগতের শৃঙ্খলা। তারপর অনেক শতক কেটে গেছে, আবিষকৃত হয়েছে মহাবিশ্বের অজস্র শব্দ, মানুষ এগিয়েছে সামনের দিকে; কিন্তু এখন আমরা আবার ফিরে চলছি পৌরণিক জগতের দিকে, অনন্ত অসীম সমপ্রসারণশীল মহাবিশ্বকে ভুলে ঢুকছি আবার বদ্ধ পৃথিবীতে এবং সব কিছু নিয়ন্ত্রণ করছে বিভিন্ন রকম বিধাতারা। হুমায়ুন আজাদ মহাবিশ্ব বইটি লিখেছেন আজকের পৌরণিক মানুষদের সামনে মহাবিশ্বকে পৌঁছে দেয়ার জন্য; লিখেছেন বিস্তৃতভাবে। একজন কবি ঔপন্যাসিক সমালোচক প্রাবন্ধিকের ছোঁয়ায় কবিতার মতো হয়ে উঠেছে জ্যোতির্বিজ্ঞান, এর প্রতিটি স্তবক পুরাণকে বাতিল করে এগিয়েছে বিজ্ঞানমনস্ক সময়ের দিকে।





আর্কাইভ

মহাবিশ্বের প্রারম্ভিক অবস্থার খোঁজেজেমস ওয়েব স্পেস টেলিস্কোপের প্রথম রঙীন ছবি প্রকাশ
ব্ল্যাকহোল থেকে আলোকরশ্মির নির্গমন! পূর্ণতা মিলল আইনস্টাইনের সাধারণ আপেক্ষিকতা তত্ত্বের
প্রথম চন্দ্রাভিযানের নভোচারী মাইকেল কলিন্স এর জীবনাবসান
মঙ্গলে ইনজেনুইটি’র নতুন সাফল্য
শুক্র গ্রহে প্রাণের সম্ভাব্য নির্দেশকের সন্ধান লাভ
আফ্রিকায় ৫০ বছর পরে নতুনভাবে হস্তিছুঁচোর দেখা মিলল
বামন গ্রহ সেরেসের পৃষ্ঠের উজ্জ্বলতার কারণ লবণাক্ত জল
রাতের আকাশে নিওওয়াইস ধূমকেতুর বর্ণিল ছটা,আবার দেখা মিলবে ৬,৭৬৭ বছর পরে!
বিশ্ব পরিবেশ দিবস ২০২০
মহাকাশে পদার্পণের নতুন ইতিহাস নাসার দুই নভোচারী নিয়ে স্পেসএক্স রকেটের মহাকাশে যাত্রা